সন্ত্রাসী বাহিনীর ভয়ে মানুষ গত নির্বাচনে ভোট দিতে পারেনি : মির্জা ফখরুল

১৬ জানুয়ারি ২০২০

অধিকারবঞ্চিত হয়ে জাতি এখন চরম দুঃসময় অতিক্রম করছে বলে মন্তব্য করে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, অর্থনীতি ভেঙে পড়ার বিষয়ে আওয়ামী লীগকে জবাবদিহি করতে হয় না। দেশে আজ ধানের দাম নেই; অথচ চালের দাম অনেক বেশি। বেড়েছে পেঁয়াজসহ নিত্যপণ্যের দাম। সবকিছুর দাম বেড়েছে; কিন্তু কৃষকরা তাদের ন্যায্য দাম থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। শ্রমিকরা তাদের ন্যায্য মজুরি থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। আমাদের কৃষক, শ্রমিক, দিনমজুরা যে অন্ধকারে ছিল, আজও তারা সেই অন্ধকারেই রয়ে গেছে। বুধবার সন্ধ্যায় ঠাকুরগাঁও জেলার রুহিয়া চৌরাস্তা আবু নুর মিল মাঠে রুহিয়া থানা বিএনপি’র দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, গত জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ভোটের আগের রাতে কিছু নির্দিষ্ট বাহিনী দিয়ে আওয়ামী লীগ সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালিয়েছে এবং রাতের আঁধারে ভোট ডাকাতি করেছে। সন্ত্রাসী বাহিনীর ভয়ে সাধারণ মানুষ তাদের ভোট প্রয়োগ করতে পারেনি; ভোট চুরি করে আওয়ামী লীগ ক্ষমতা দখল করে আছে বলেও অভিযোগ করেন বিএনপি মহাসচিব।

বিএনপির নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে অভিযোগ করে মির্জা ফখরুল বলেন, বিএনপির ৩৬ লাখ নেতা-কর্মীর বিরুদ্ধে এক লাখ মিথ্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। আমাদের প্রায় ৫’শ নেতা-কর্মীকে গুম করা হয়েছে। তাদের মা, স্ত্রী ও সন্তানেরা আজও পথ চেয়ে থাকে স্বজনরা ফিরবে এ আশায়।

রুহিয়া থানা বিএনপি’র আহবায়ক মো: আনছারুল হকের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র মির্জা ফয়সল আমিন। সম্মেলনের উদ্বোধন করেন ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপি’র সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা তৈমুর রহমান। সম্মেলনে এসময় ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপি’র সহ-সভাপতি ওবায়দুল্লাহ মাসুদ, ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপি’র ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক রাশেদ আলম লাবু, সদর উপজেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হামিদ, ১নং রুহিয়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মোস্তফা কামাল, ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপি’র সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মকবুল হোসেন, ঠাকুরগাঁও জেলা যুবদলের সভাপতি মাহেবুল্লাহ আবু নুর চৌধুরী, রুহিয়া ইউনিয়ন বিএনপি’র সভাপতি গোলাম মোস্তফা (প্রভাষক), রুহিয়া ইউনিয়ন বিএনপি’র সাংগঠনিক সম্পাদক রশিদুল ইসলাম, রাজাগাঁও ইউনিয়ন বিএনপি’র সহ-সভাপতি নুরুল ইসলাম নুরু, ঢোলারহাট ইউনিয়ন বিএনপি’র সভাপতি ইশারুল ইসলাম, রুহিয়া পশ্চিম ইউনিয়ন বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক সামসুল আলম, আখানগর ইউনিয়ন বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক ইবনে ফজল, রুহিয়া থানা কৃষক দলের সাধারণ সম্পাদক লুৎফর রহমান, রুহিয়া থানা যুবদলের সভাপতি আনার আলী, রুহিয়া থানা জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের সভাপতি রহিমা খাতুন, রুহিয়া থানা সেচ্ছাসেবক দলের আহবায়ক আল আমিন, রুহিয়া থানা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক শাহীন আলম শাহী, শ্রমিক দলের নেতা দবিরুল ইসলাম প্রমুখ নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

রুহিয়া থানা কমিটির নাম ঘোষণা করেন জেলা বিএনপি’র সভাপতি ও দ্বিতীয় অধিবেশনের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা তৈমুর রহমান। রুহিয়া থানা বিএনপি’র সভাপতি পদে বীর মুক্তিযোদ্ধা মোস্তফা কামাল এবং সাধারণ সম্পাদক পদে আব্দুল মালেক মানিকসহ আংশিক কমিটির নাম ঘোষণা করা হয়। উক্ত সম্মেলনে রুহিয়া থানার ৫টি ইউনিয়নের বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী ও সমর্থক উপস্থিত ছিলেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here